অফার

টেলিটক আগামী সিম রেজিস্ট্রেশন ২০২২, দাম, অফার, সুবিধা

টেলিটক টেলিটক আগামী সিম সম্পর্কে আপনারা যারা জানতে ইচ্ছুক তাদের জন্য এই নিবন্ধ। আপনি যদি টেলিটক আগামী সিম ক্রয় এবং টেলিটক আগামী সিমের অফার সম্পর্কে জানতে চান? তাহলে এই নিবন্ধে আপনাকে স্বাগতম। টেলিটক বাংলাদেশে একমাত্র সরকারি মোবাইল অপারেটর। তাই সবচেয়ে বেশি সুযোগ সুবিধা দিয়ে থাকে টেলিটক আগামী সিম। বাংলাদেশের শিক্ষার্থীদের কথা চিন্তা করে বাংলাদেশ সরকার টেলিটক আগামী সিম এ বিশেষ কিছু অফার যুক্ত করেছে। এই অফার গুলো পেতে হলে অবশ্যই আপনাকে টেলিটক আগামী সিম ক্রয় করতে হবে। তাহলে আপনি এই অফার গুলো পেতে পাবেন। কিন্তু টেলিটক আগামী সিম সব স্টুডেন্ট পাবেনা। টেলিটক আগামী সিম পেতে হলে ছাত্র-ছাত্রীদের কিছু শর্তাবলী দেওয়া হয়েছে। আমি নিচে ক্রমান্বয়ে টেলিটক আগামী সিম সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করছি।

টেলিটক আগামী সিম কেনার এর নির্দেশিকা

টেলিটক আগামী সিম ক্রয়ের জন্য একজন ছাত্রের কিছু শর্ত পূরণ করতে হচ্ছে। নিচের শর্তগুলো উল্লেখ করা হলো।

  • 2018 সালে এসএসসি তে জিপিএ 5 প্রাপ্ত সকল ছাত্র-ছাত্রী টেলিটক আগামী সিম ক্রয় করতে পারবে।
  • 2010 থেকে 2017 সাল পর্যন্ত এসএসসিতে জিপিএ 5 প্রাপ্ত যে সকল ছাত্র-ছাত্রী পূর্বে আগামী সিম গ্রহণ করেন নাই তারা আবেদন করতে পারবে।
  • 2010 থেকে 2018 সাল পর্যন্ত ও লেভেল পরীক্ষায় কমপক্ষে দুটি বিষয়ে প্রাপ্ত সকল ছাত্র-ছাত্রী আবেদন করতে পারবে।

টেলিটক সিম রেজিস্ট্রেশন পদ্ধতি

টেলিটক সিম ক্রয় এর জন্য আপনাকে অবশ্যই রেজিস্ট্রেশন করে ক্রয় করতে হবে। টেলিটক আগামী সিম ক্রয়ের ক্ষেত্রে রেজিস্ট্রেশন এর জন্য আপনার যেকোনো মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে টাইপ করতে হবে। আগামী স্পেস বোর্ডের প্রথম তিন সংকেত স্পেস স্পেস পাসিং ইয়ার স্পেস আপনার কন্টাক্ট নাম্বার স্পেস যে জায়গা থেকে সিম উত্তোলন করতে চান এবং পাঠিয়ে দিতে হবে 16222 নম্বরে
AGAMI<>Board(first 03 letters)<>Roll<>Passing Year<>ContactNo<>CC Code
and send to 16222

Example:1) AGAMI DHA 12345 2020 015XXXXXXXX 101
2) AGAMI MYM 12345 2020 015XXXXXXXX 101

টেলিটক বর্ণমালা আবেদন পরবর্তী করণীয়

  • আপনি ID নাম্বার এবং OTP পেয়েছেন অর্থাৎ সিম উত্তোলনের এসএমএস পেয়েছেন। উক্ত এসএমএস দিয়ে আপনি যেকোনো সময় যেকোনো টেলিটক কাস্টমার কেয়ার থেকে সিমটি উত্তোলন করতে পারবেন। আপনার যদি NID কার্ড না থাকে সেক্ষেত্রে আপনি আপনার অভিভাবকের NID কার্ড ব্যবহার করে টেলিটক বর্ণমালা সিমটি উত্তোলন করতে পারবেন।
  • সিম উত্তোলনের নির্দিষ্ট তারিখে নিম্নোক্ত ডকুমেন্টসমূহ অবশ্যই সাথে আনতে হবেঃ👉
  • যার নামে সিম রেজিস্ট্রেশন করা হবে তার ২ কপি ছবি।
  • যার নামে সিম রেজিস্ট্রেশন করা হবে তার NID এর ফটোকপি।
  • যার নামে সিম রেজিস্ট্রেশন করা হবে তাকে বায়োমেট্রিক রেজিস্ট্রেশনের জন্য স্ব-শরীরে আসতে হবে।
  • টেলিটক কর্তৃক সিম উত্তোলনের ম্যাসেজ।
  • সিমের দাম ১০০ টাকা ।

টেলিটক আগামী সিমের ইন্টারনেট অফার ২০২২

টেলিটক বাংলাদেশের সকল ছাত্র-ছাত্রী কথা ভেবে তাদের আগামী সিমের ইন্টারনেট অফার চালু করেছে। করোনাভাইরাস পরিস্থিতি তথা বর্তমান ডিজিটাল যুগেও অনলাইনে অনেক শিক্ষা কার্যক্রম চালু আছে। এর জন্য বর্তমান যুগের ছাত্র ছাত্রীদের সব সময় ইন্টারনেট সাথে সংযুক্ত থাকতে হয়। এর জন্য বাংলাদেশ সরকারের এই উদ্যোগ। আমি টেলিটক আগামী সিমের অফার গুলো নিচে উল্লেখ করলাম।

  • ১ জিবি টাকা : ২২ মেয়াদ : ৭ দিন কোড : *১১১*৬০০#
  • ১ জিবি টাকা : ৪৫ মেয়াদ : ৩০ দিন কোড : *১১১*৬০১#
  • ২ জিবি টাকা : ৮১ মেয়াদ : ২০ দিন কোড : *১১১*৬০২#
  • ৩ জিবি টাকা : ৫৫ মেয়াদ : ১০ দিন কোড : *১১১*৬০৩#
  • ৫ জিবি টাকা : ৯১ মেয়াদ : ১৫ দিন কোড : *১১১*৬০৫#
  • ১০ জিবি টাকা : ১৭৭ মেয়াদ : ৩০ দিন কোড : *১১১*৬১০#

টেলিটক আগামী সিমের রিচার্জ অফার ২০২২

টেলিটক আগামী সিম আকর্ষণীয় রিচার্জ অফার দিয়ে থাকে। আমি নিচে ক্রমান্বয়ে টেলিটক আগামী সিমের রিচার্জ অফার গুলো যুক্ত করলাম। এই অফারের আওতায় টেলিটক আগামী সিমের মিনিট এবং এসএমএস অফার অন্তর্ভুক্ত থাকছে।

  • লিটক আগামী সিম বিক্রির জন্য নয়–এটি অনলাইনে নাম নিবন্ধনের মাধ্যমে জিপিএ ফাইভ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিতরন করা হবে।
  • স্টার্ট আপ বোনাসঃ সিম এক্টিভেশনের পর ১০০ টাকা রিচার্জে থাকছে ৩০  দিন মেয়াদে- ফ্রি ১০০ মিনিট টকটাইম, ফ্রি ৫ জিবি ডাটা এবং ফ্রি ১০০ এস এম এস। রিচার্জকৃত ১০০ টাকা গ্রাহকের মূল ব্যালেন্সে যোগ হবে।
  • সিম এক্টিভেট করার পর স্টার্ট আপ বোনাসটি কেবল একবারেই পাওয়া যাবে।
  • গ্রাহকের ইন্টারনেট ব্যালেন্স শেষ হবার পর পে-পার-ইউজ রেট প্রযোজ্য হবে। পে পার ইউজ রেট- ১৫ কেবি/ ১ পয়সা (সর্বোচ্চ ৫ টাকা) ।
  • ২৫ টাকা রিচার্জে- গ্রাহক পাবেন ফ্রি ২৫মিনিট (অননেট), ২৫ এসএমএস(অননেট) ও ৫০ এমবি (মেয়াদ ৩ দিন) । রিচার্জকৃত ২৫ টাকা গ্রাহকের মূল ব্যালেন্সে যোগ হবে।

Md Jahidul Islam

আমি মোঃ জাহিদুল ইসলাম। জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলা বিভাগ হতে স্নাতক এবং স্নাতকোত্তর ডিগ্রি সম্পন্ন করে 2018 সাল থেকে সমাজের অর্থনৈতিক, রাজনৈতিক, সামাজিক,মানবিক দৃষ্টিভঙ্গি অবলোকন করে- জীবনকে পরিপূর্ণ আঙ্গিকে নতুন করে সাজানোর আশাবাদী। নতুনের প্রতি মানুষের আকর্ষণ চিরস্থায়ী- তাই নবরুপ ওয়েবসাইটে নিয়মিত লেখালেখি করি।
Back to top button